আরিফ হোসেন হারিছ সিরাজদিখান(মুন্সীগঞ্জ)প্রতিনিধি :

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে মামা শ্বশুর বাড়ির ঘরের ফ্যানের সাথে গলায় রশি প্যাচানো এবং হাত বাধা অবস্থায় রাজন মন্ডল (৩০) নামের এক যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার ৬ জুলাই সকালে উপজেলার চিত্রকোট ইউনিয়নের গোয়ালখালী গ্রামে নিহতের মামা শশুর অজিত মন্ডলের বাড়ীতে এ ঘটনা ঘটে। লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরী করে ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
রাজন মন্ডল ঢাকা জেলার কেরানীগঞ্জ উপজেলার গোবিদপুর গ্রামের গোপাল মন্ডলের পুত্র ।

গত জুন মাসের ৭ তারিখ রাজন মন্ডলের সাথে গোয়ালখালীর চিনিবাস মন্ডলের মেয়ে পূর্নিমা মন্ডলের (২৪) সাথে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিয়ে হয় । বিয়ের এক মাসের মাথায় মামাতো শালার বিয়েতে এসে লাশ হলেন জামাই রাজন মন্ডল ।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান,উপজেলার চিত্রকোট ইউনিয়নের গোয়ালখালী গ্রামে রাজন মন্ডল স্ত্রীকে সাথে নিয়ে মামা শশুর বিমন মন্ডলের ছেলের বিয়েতে আসেন । মঙ্গলবার ৫ জুলাই দিবাগত রাতে বিয়ে সম্পন করে পাশের বাড়ী আরেক মামা শশুর অজিত মন্ডলের বিল্ডিং দ্বিতীয় তলায় ঘুমাতে জান । সকাল ৭ টার দিকে বাড়ীর লোকজন ফ্যানের সাথে ঝুলানো এবং হাত বাধা অবস্থায় দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ।

সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনচার্জ একে এম মিজানুল হক বলেন, হাত বাধা অবস্থায় গলায় রশি প্যাচিয়ে ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় ছিল তবে যে রুমে ঘটনাটি ঘটেছে বাহির থেকে ছিটকারি লাগানো ছিল বলেও অনেকে জানায়। নিহতের লাশ উদ্ধার করে মুন্সীগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। হত্যা না আত্মহত্যা এখন চুড়ান্ত মন্তব্য করতে পারছিনা। ময়নাতদন্তের রির্পোট পাওয়ার পরে বলা যাবে। এ ঘটনায় আমরা জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩ জনকে থানায় নিয়ে এসেছি। অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।