আরিফ হোসেন হারিছ সিরাজদিখান (মুন্সিগঞ্জ) প্রতিনিধি:

মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানে এক ব্যক্তি বসত ঘরের আড়ার সাথে ওড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।বোরবার ৫ জুন রাত আনুমানিক ১১ টায় উপজেলার
বাসাইল ইউনিয়নের পলাশপুর গ্রামে সরকারি আশ্রয় প্রকল্পে নিহতের ভাড়া করা বসত ঘরের রুমের ভিতরে এঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায় রোববার ৫জুন রাত আনুমানিক ১১ টায় উপজেলার বাসাইল ইউনিয়নের পলাশপুর গ্রামের আশ্রয় প্রকল্পের ভাড়াটিয়া বাসাইল ইউনিয়নের ব্রজের হাটি গ্রামের মৃত তমিজউদ্দিন মোঃ সালাউদ্দিন (৩৮)।স্ত্রীর সাথে প্রায়ই নিহত সালাউদ্দিনের অভাবের তাড়নায় পারিবারিক কলহ লেগেই থাকত। তাহারেই জের হিসাবে সে গতকাল কোন কাজ না করায়, স্ত্রীর সাথে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে ঘরের মধ্যে পার্টিশন করা রুমের মধ্যে একপাশে নিহত অন্যপাশে ছেলে মেয়ে নিয়ে তার স্ত্রী আল্লাদী শুয়ে থাকে। রাত ১১ টায় স্ত্রী আল্লাদী দেখে যে,তার স্বামী মো সালাউদ্দিন ঘরের আড়ার সাথে মেয়ের ওড়না পেঁচিয়ে ফাস দিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় আছে।
স্ত্রীর ডাক চিৎকার দিলে ছেলে মেয়েরা আসে এবং তার বড় মেয়ের সাদিয়ার সাহায্যে বটি দিয়ে ওড়না কেটে খাটের উপর নামিয়ে রাখে।

পরে স্থানীয় লোকজনকে অবহিত করলে তাহারা রাত ১১ টায় ৪০ মিনিটে থানায় খবর দিলে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে উপস্থিত হয়ে লাশ উদ্ধার করে।লাশের সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরী করে ময়নাতদন্তের মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেন।

এবিষয়ে সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনচার্জ একে এম মিজানুল হক জানান খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশ উদ্ধার করি।ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।