আরিফ হোসেন হারিছ সিরাজদিখান (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি :

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে মো: শাহিদ (৫০)নামে এক অটো চালককে জবাইকে করে হত্যার পর তাঁর অটোরিকশা নিয়ে পালিয় যাওয়ার সময় ঘটনার সাথ জড়িত প্রদীপ চন্ড মন্ডল নাম একজন গ্রেফতার করেছে সিরাজদিখান থানা পুলিশ । বুধবার ২৩ মার্চ দিবাগত রাতে আড়াইটার দিকে উপজেলার নিমতলা-সিরাজদিখান সড়কের সিংগারটেক নামক এলাকায় এ ঘটনা ঘটে । নিহত শহিদ উপজেলার কেয়াইন ইউনিয়নের কাটগাও গ্রামের মৃত সেলিম উদ্দিনের পুত্র ।

পুলিশ ও নিহতের স্বজনরা জানান,বুধবার দিবগত রাতে ২ টার দিকে নিমতলা নামক স্থান থেকে ঢাকা জেলার কেরানীগঞ্জ থানার শুভাঢ্যা গ্রামের মুখাই চদ্র মন্ডলের ছেলে প্রদীপ চদ্র মন্ডল (৩৬), পরান মন্ডলের ছেলে রামপদ মন্ডল (৩৮) এবং কেরানীগঞ্জ আগানগর এলাকার আব্দুল হালিম তিনজন অটো ছিনতাইয়ের উদ্দেশ্যে যাত্রী সেজে নিমতলা থেকে সিরাজদিখান যাবে বলে শহিদ মিয়াার অটো ভাড়া করে । অটো সিংগারটক নামক এলাকা আসলে তারা অটোচালক শহিদকে গতিরোধ করে অটো থেকে নামিয়ে দিতে চাইলে অনেকক্ষন দস্তাদস্তি চলে এক সময় ছিনতাইকারীরা চাকু দিয়ে শহিদের গলায় পার দিয়ে অটো নিয় চলে যায় । শহিদের চিৎকারে টহল পুলিশ ও এলাকার কয়েকজন মিলে শহিদকে উদ্ধার করে কিন্তু হাসপাতাল নেওয়ার আগেই শহিদ মারা যায় । টহল পুলিশ এবং স্থানীয় জনতা মিলে ঘটনাস্থল থেকে ১ কি: মি: দুরে ঘাতক প্রদীপ চদ্র মন্ডলকে অটোসহ গ্রেফতার করে বাকী দুজন পালিয় যায় ।

সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনচার্জ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,ঘাতকদের উদ্দেশ্য ছিল অটো ছিনতাই তবে তারা তিজনই পেশাদার ছিনতাইকারী তাদের বিরুদ্ধে ঢাকা জেলার কেরানীগঞ্জ থানায় একাধিক ছিনতাইয়ের মামলা রয়েছে । প্রদীপ চদ্র মন্ডলের স্বিকার উক্তিতে হত্যায় ব্যবহিত চাকু উদ্ধার করা হয়েছে । এ ঘটনায় নিহত শহিদ মিয়ার ভাই বাদল মিয়া বাদী হয় ৩ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা করেছেন ।