শেখ শোভন আহমেদ, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার পিরোজপুর গ্রামে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে ছোট ভাইয়ের ছুরিকাঘাতে বড় ভাই নিহতের ঘটনা ঘটেছে মঙ্গলবার দুপুরে। নিহত ফজলুর রহমান (৭০) সাবেক ইউপি সদস্য এবং ওই গ্রামের মজিবুর রহমান শাহ’র ছেলে, বর্তমানে তিনি বারোবাজার এলাকায় ইলেকট্রনিক্স ব্যবসা করতেন।

এলাকাবাসীদের দেওয়া তথ্য মতে, দীর্ঘদিন ধরে পিতার রেখে যাওয়া সম্পত্তি নিয়ে বড় ভাই ফজলুর রহমানের সাথে ছোট ভাই হাফিজুর রহমানের বিরোধ চলছিল।বিষয়টি নিস্পত্তির জন্য মঙ্গলবার দুপুরে বারোবাজারে অবস্থিত ছোট ভাই হাফিজুরের হোমিও ফার্মেসীতে যান বড় ভাই ফজলুর রহমান। সেখানে দুই ভায়ের কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে ছোট ভাই তার টেবিলে থাকা ছুরি দিয়ে বড় ভাইয়ের বুকে এলোপাতাড়ি আঘাত করে। ছুরিকাঘাতে গুরুতর আহত হন বৃদ্ধ ফজলুর রহমান। তাকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

যশোর সদর হাসপাতালের জরুরী বিভাগের চিকিৎসক ডাঃ তাহমিদুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ফজলুর রহমানকে হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই তার মৃত্যু হয়েছে।

কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রহিম মোল্লা বলেন, পারিবারিক ও জমা-জমি নিয়ে বিরোধের কারনে এই হত্যার ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ নিহতের ছোট ভাই হত্যাকারি হাফিজুরকে গ্রেফতারের চেষ্টা করছে।